spot_img

পবিত্র গ্রন্থ পুড়িয়ে ফেলা খুবই অসম্মানজনক: যুক্তরাষ্ট্র

অবশ্যই পরুন

পবিত্র গ্রন্থ পুড়িয়ে ফেলা খুবই অসম্মানজনক বলে মন্তব্য করেছেন মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের মুখপাত্র নেড প্রাইস। বলেন, বৈধ কর্মসূচি হলেও এ ধরণের কাজ যথাযথ নয়। সুইডেনে পবিত্র কোরআন পুড়িয়ে ফেলা প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে তিনি এ মন্তব্য করেন। খবর রয়টার্সের।

যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র নেড প্রাইস আরও বলেন, গণতান্ত্রিক দেশ হিসেবে আমরা কোনো সংগঠনের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচির অধিকারকে সমর্থন করি। তবে অনেকের কাছে পবিত্র হিসেবে বিবেচিত, এমন কোনো গ্রন্থ পুড়িয়ে ফেলাটা খুবই অসম্মানজনক।

এদিকে সুইডিশ প্রধানমন্ত্রী নিজেও বলেছেন, বৈধ সবকিছুই যথাযথ নাও হতে পারে। আমাদের দেশে একটি কথা প্রচলিত আছে, বৈধ কাজও ভয়ঙ্কর হতে পারে। আমার মনে হয় সুইডেনের ওই ঘটনাতেও সে রকম ব্যাপার হয়েছে।

এদিকে স্টকহোমে তুর্কি দূতাবাসের সামনে পবিত্র কোরআন পুড়িয়ে ফেলার ঘটনার পর থেকে ক্ষোভে ফুঁসছে তুরস্কের ধর্মপ্রাণ মুসলিমরা। এরইমধ্যে ন্যাটো জোটে সদস্যপদ পেতে সুইডেনকে আর সমর্থন দেবেন না বলেও সাফ জানিয়ে দিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোগান। এছাড়া বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে এ ঘটনার নিন্দা জানানো হয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ

কাকরাইল মসজিদে উলামাদের সাথে রিজওয়ান-হাসান আলি

মোহাম্মদ রিজওয়ানের ধর্মপ্রীতির কথা কার না জানা! ক্রিকেটের বাইশগজের গণ্ডিও হতে পারেনি তার ধর্ম চর্চায় বাধা। ইসলামকে যিনি ধারণ...

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ