spot_img

মাকে খুন করায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড অভিনেতার

অবশ্যই পরুন

গর্ভধারিণী মাকে খুনের দায়ে দোষী সাব্যস্ত হওয়ায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে কানাডিয়ান অভিনেতা রায়ান গ্রান্থামকে। বুধবার (২১ সেপ্টেম্বর) ভ্যাঙ্কুভারের ব্রিটিশ কলাম্বিয়া সুপ্রিম কোর্ট এই সাজা ঘোষণা করেন। যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের প্রথম ১৪ বছর প্যারোলের জন্য যোগ্য হবেন না এই অভিনেতা।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রায়ান গ্রান্থাম ২০২০ সালে তার মা বারবারা ওয়েটকে খুন করেন। প্রাথমিকভাবে খুনের অভিযোগে প্রমাণিত হওয়ায় পরবর্তীতে দোষ স্বীকার করেন তিনি।

রায়ান ভ্যাঙ্কুভারের উত্তরে তাদের বাড়িতে পিয়ানো বাজানোর সময় মাথার পেছনে গুলি করে মাকে খুন করেন বলে স্বীকার করেন আদালতে।

আইনজীবিরা জানিয়েছেন, ২৪ বছর বয়সী এই অভিনেতা কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোকেও হত্যার পরিকল্পনা করেছিলেন।

মাকে হত্যা করেছি আমি:
মাকে খুনের পর গো-প্রো ক্যামেরায় করা একটি ভিডিওতে রায়ান বলেছিলেন, ‘আমি তাকে মাথার পেছনে গুলি করেছিলাম। কিছুক্ষণ পরেই সে জানতে পারে যে এটা আমিই।’

কানাডিয়ান এই অভিনেতা মাকে খুনের কিছুক্ষণ পরে বিয়ার পান ও গাঁজা সেবন করেন। এরপর তিনটি বন্দুক, গোলা-বারুদ ও নিজের তৈরি করা ১২টি মোলোটভ ককটেল এবং মি. ট্রুডোর রিডো কটেজের বাসভবনে ক্যাম্পিংয়ের জন্য নির্দেশনাসহ সব প্যাক করেন।

রায়ান আনুমানিক ২০০ কিলোমিটার পূর্বে হোপ শহরের দিকে যান গাড়ি চালিয়ে। এর আগে তিনি একজন পুলিশ অফিসারকে মাকে খুনের কথা জানিয়েছিলেন।

রায়ান গ্রান্থম ২০১০ সালে ‘ডায়েরি অব আ উইম্পি কিড’-এ অভিনয় করে খ্যাতি লাভ করেন। এরপর ২০১৯ সালে টিভি শো ‘রিভারডেল’ এবং ফ্যান্টাসি ড্রাম ‘সুপারন্যাচরাল’-এ অভিনয় করেন তিনি।

সর্বশেষ সংবাদ

স্পেনকে হারিয়ে জাপানের অঘটন, হেরেও নকআউটে স্পেন

  সাবেক চ্যাম্পিয়ন স্পেনকে ২–১ গোলে হারানোর মতো চমক দেখিয়ে কাতার বিশ্বকাপের ই গ্রুপের সেরা হয়ে মাথা উঁচিয়ে শেষ ষোলোতে...

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ