spot_img

ঈদের পরের দিনেও মাওয়া-শিমুলিয়া ফেরিতে জনস্রোত

অবশ্যই পরুন

নাড়ির টানে বাড়ি যাওয়া যেন শেষ হয়েও হচ্ছে না শেষ। ঈদের পরের দিনেও মুন্সীগঞ্জের মাওয়া-শিমুলিয়ায় দেখা যায় জনস্রোত। কোনোভাবেই থামছে না এই ঢল। ঈদের আগের দিনই মাওয়া-শিমুলিয়া ফেরীঘাট ফাঁকা ছিল। চিরচেনা মাওয়া ফেরিঘাটে বাড়ি যাওয়া মানুষের চাপে আবার জনস্রোত নেমেছে। এমনটি দেখা গেছে শনিবার শনিবার সকাল থেকে সকাল সাড়ে ৮টা পর্যন্ত। এমনকি মাওয়া শিমুলিয়া ঘাটে ঈদের দিনেও ঘরমুখো মানুষের চাপ ছিল। যারা নানা কারণে যাত্রা করেননি বা ফিরে গেছেন, তারাই পদ্মা পার হয়েছেন শুক্রবার।

সামনে আরো সাত দিনের লকডাউন থাকবে, এমন আশঙ্কায় ওই বিধিনিষেধের আগেই বাড়িতে যেতে চাচ্ছেন এই সকল যাত্রীরা।

এদিকে বিআইডব্লিউটিসি শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটের বহরে আরো দুটি ফেরি যুক্ত হয়েছে : রোরো ফেরি বীর শ্রেষ্ঠ জাহাঙ্গীর ও ডাম্প ফেরি রাণীক্ষেত। ঈদের দিন বহরের ১৮ ফেরি সচল ছিল। আজ শনিবার ১৪টি ফেরি চলাচল করছে।

বিআইডব্লিউটিসির ম্যানেজার আহাম্মদ আলী জানান, ঈদের দিনও ঘরমুখো মানুষকে পার করা হয়েছে। একটি ফেরি ছেড়েছে শুধু যাত্রী নিয়ে। বেশ কিছু গাড়িও পার করা হয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ

সেই রাতে চিত্রনায়িকা পরিমনির ঘটনা নিয়ে মুখ খুললেন জিমি

আজ সোমবার সকালে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগে উত্তরা ক্লাবের সাবেক সভাপতি নাসির উদ্দিন মাহমুদ ও অমিসহ ছয়জনকে আসামি করে...

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ