36 C
Dhaka
মঙ্গলবার, অক্টোবর ২৭, ২০২০

গুগল ডুডলে প্রথম বাঙালি মুসলিম নারী চিকিৎসক অধ্যাপক জোহরা

অবশ্যই পরুন

করোনায় মা’রা যাওয়া দুদক পরিচালকের স্বজন বলে দিলেন করোনা থেকে সুস্থ হওয়ার টোটকা

করোনা ভাইরাস বাংলাদেশে হানা দিয়েছে প্রায় ১ মাসের বেশি হয়ে গেল। আর এই এক মাসের মধ্যে করোনা বেশ ছড়িয়েছে...

রাশিয়ায় বাড়ছে করোনা, সামরিক বাজেট ব্যবহারের নির্দেশ পুতিনের

বিশ্বে করনোভাইরাসের মারাত্মক হানার মধ্যেও রাশিয়ায় শুরুতে খুব বেশি প্রভাব দেখা দেয়নি। তবে সম্প্রতি দেশটিতে ভয়ংকর আকার নিতে শুরু...

সিঙ্গাপুরে একদিনে সর্বোচ্চ আক্রান্তের রেকর্ড

বুধবার একদিনে সিঙ্গাপুরে ৪৪৭ জনের দেহে করোনাভাইরাসের উপস্থিতি শনাক্ত করা হয়েছে। যা দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার এই দ্বীপরাষ্ট্রে একদিনে সর্বোচ্চসংখ্যক করোনা...

ফ্যামিলি বাইকার হয়ে উঠার পিছনের গল্প

আজকে আমি পরিচয় করিয়ে দিবো আমার ফ্যামিলি বাইকার হয়ে উঠার পিছনে অন্যতম সাহায্যকারী আমার বৌ Sharmin Upoma কে। সে শুধু...

বিখ্যাত ব্যক্তিত্ব ও ঐতিহাসিক দিনকে স্মরণ করার জন্য গুগল তাদের হোমপেজে প্রকাশ করে বিশেষ লোগো, যাকে বলা হয় ডুডল। বৃহস্পতিবার জন্মদিনে ডুডলে স্থান পেয়েছেন অবিভক্ত বাংলার প্রথম মুসলিম নারী চিকিৎসক অধ্যাপক জোহরা বেগম কাজী।

সার্চ ইঞ্জিন জায়ান্টটির হোমপেজে প্রবেশ করলেই দেখা যাচ্ছে বিশেষ ডুডলটি। এতে গুগলের অক্ষরগুলোকে সাজানো হয়েছে বিশেষভাবে। যেখানে দেখা যাচ্ছে জোহরা বেগম কাজীর গলায় স্টেথসস্কোপ ও মাথার ওপর গাছের ছায়া। গায়ে জড়ানো হলুদ রঙের একটি পোশাক।

ডা. জোহরা বেগম কাজী ১৯১২ সালের ১৫ অক্টোবর ব্রিটিশ ভারতের মধ্য প্রদেশের রাজনান গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবা ডা. কাজী আব্দুস সাত্তার ও মায়ের নাম মোসাম্মদ আঞ্জুমান নেসা। তার আদি পৈতৃক নিবাস বাংলাদেশের মাদারীপুর জেলার কালকিনি থানার গোপালপুর গ্রামে।

জোহরা কাজী ১৯২৯ সালে আলিগড় মুসলিম মহিলা স্কুল থেকে প্রথম বাঙালি মুসলিম হিসেবে এসএসসি পাশ করেন। ২৩ বছর বয়সেই দিল্লির লেডি হাডিং মেডিকেল কলেজ থেকে ১৯৩৫ সালে প্রথম শ্রেণিতে প্রথম স্থান অধিকার করে এমবিবিএস পাস করেন। অর্জন করেন ভাইসরয় পদক।

এমবিবিএস ডিগ্রি লাভ করার বছরেই জোহরা বেগম কাজী কর্মজীবনে প্রবেশ করেন। প্রথমে ইয়োথমাল ওয়েমেন্স (পাবলিক) হাসপাতালে যোগ দেন। এরপর বিলাসপুর সরকারি হাসপাতালে যোগ দেন। পরবর্তীকালে মহাত্মা গান্ধীর সেবাগ্রামে অবৈতনিকভাবে কাজ করেন। এ ছাড়া তিনি ভারতের বিভিন্ন বেসরকারি ও সরকারি প্রতিষ্ঠানে কাজ করেছেন।

১৯৪৭ সালে দেশ ভাগের পর তিনি ঢাকায় চলে আসেন। পরের বছর ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যোগ দেন। সেখানে কর্মরত অবস্থায় অবসর সময়ে তিনি সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে অনারারি কর্নেল হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেন। মিটফোর্ড মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গাইনোকলজি বিভাগের প্রধান ও অনারারি প্রফেসর ছিলেন জোহরা বেগম কাজী। ১৯৭৩ সালে চাকরি থেকে অবসর নেওয়ার পর বেশ কিছু বছর হলিফ্যামিলি রেডক্রিসেন্ট হাসপাতালে কনসালট্যান্ট হিমেবে চিকিৎ‍সা সেবা প্রদান করেন। পরবর্তীকালে তিনি বাংলাদেশ মেডিকেলে অনারারি অধ্যাপকের দায়িত্ব পালন করেন।

জোহরা বেগম কাজী তখমা-ই-পাকিস্তান (১৯৬৪), একুশে পদক (২০০৮) ও বেগম রোকেয়া পদক (২০০২) অনেক স্বীকৃতি ও পুরস্কার পেয়েছেন।

তিনি ২০০৭ সালের ৭ নভেম্বর মারা যান।

সর্বশেষ সংবাদ

করোনা টিকার পরীক্ষায় সর্বকনিষ্ঠ স্বেচ্ছাসেবক

কার্যকারিতা ও নিরাপত্তা পরীক্ষার জন্য যুক্তরাষ্ট্রে একশত শিশুর ওপর ফাইজার আবিষ্কৃত করোনা ভাইরাসের টিকার পরীক্ষা চালানো হচ্ছে।...

অ্যালবাম করার চেয়ে এক গ্লাস ওয়াইন খাওয়া ভালো: অ্যাডেল

দীর্ঘদিন ধরে 'হচ্ছে-হবে' করেও নতুন অ্যালবাম প্রকাশ পাচ্ছে না ব্রিটিশ তারকা গায়িকা অ্যাডেলের। এ ব্যাপারে দীর্ঘ বিরতি শেষে মুখ খুললেন তিনি।  শনিবার এক...

রোনালদোর বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু হয়েছে

পর্তুগালের হয়ে উয়েফা নেশন্স লিগের ম্যাচ খেলতে গিয়ে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। সেরা তারকা করোনায় আক্রান্ত হওয়ায় বিপদেই পড়তে হয়েছে জুভেন্টাসকে।...

বয়স্কদের দেহে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি করতে পেরেছে অ্যাস্ট্রাজেনেকার ভ্যাকসিন

ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালে অংশ নেওয়া বয়স্ক স্বেচ্ছাসেবীদের দেহে কোভিড-১৯ মোকাবিলায় রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা উদ্দীপ্ত করতে সফল হয়েছে অ্যাস্ট্রাজেনেকার প্রার্থী ভ্যাকসিন। আজ সোমবার এক...

মন্দিরা বেদি দত্তক নেওয়া কন্যাসন্তানের পরিচয় করালেন নেটদুনিয়ায়

দত্তক নেওয়ার ইচ্ছাপ্রকাশ করেছিলেন আগেই। ইচ্ছা যখন হয়েছে সে কাজ তো না করলেই নয়। তাই গত জুলাই মাসেই কন্যাসন্তান দত্তক নিয়েছিলেন মন্দিরা...

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ